লোপা হোসেইনের স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘শেকল’

জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী লোপা হোসেইনের  আগে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র এবং একটি তথ্যচিত্র নির্মাণ করেছেন। আবারো তিনি নতুন একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র নির্মাণ করছেন। সমাজের ভিন্নক্ষেত্রে অবস্থানকারী দু’জন নারীর গল্প নিয়ে নির্মাণাধীন এ চলচ্চিত্রের নাম ‘শেকল’। গল্পের সেই দু’জন নারী সামাজিকভাবে আলাদা অবস্থানে থাকলেও মূলত একই জায়গায় দাঁড়িয়ে। কারণ, তারা নারী। তবে এটাও সত্য যে নারীরা যদি একে অপরের দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন তাহলে অবশ্যই বহুদিনের বৈষম্যের শেকল ভাঙতে পারবে। 

 এমনটা বিশ্বাস করেন নির্মাতা লোপা হোসেইন। তাই তিনি ছোট্ট একটি ঘটনা অবলম্বনে নিজের সংলাপ, চিত্রনাট্য ও নির্দেশনায় নির্মাণ করেছেন ‘শেকল’। সুস্মিতা সিনহা ও ফারিহা হোসেন নীলিমাকে নিয়ে  সোমবার রাজধানীর উত্তরার বিভিন্ন লোকেশনে লোপা এই চলচ্চিত্রের শুটিংয়ের কাজ শেষ করেছেন। এতে দু’জনের মধ্যে একজন গায়িকা এবং অন্যজন পতিতা চরিত্রে অভিনয় করেছেন। 

চলে গেলেন মাইকেল জ্যাকসনের বাবা

চলে গেলেন মাইকেল জ্যাকসনের বাবা

http://www.mzamin.com/news_image/123281_jacson.jpg 

চলে গেলেন পপ গানের সম্রাাট মাইকেল জ্যাকসনের বাবা জো জ্যাকসন। অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স ছিল ৮৯ বছর।  জানা যায়, লাস ভেগাসে জো জ্যাকসনের শেষ দিনগুলো কেটেছে অসুস্থতায়। বুধবার ভোরে হঠাতই সেরিব্রাল অ্যাটাক হলে হাসপাতালে ভর্তির কিছুক্ষণের মধ্যেই তার মৃত্যু হয়। এক টুইটে জো’র মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন তার নাতি। ‘পাপা জো’ নামে খ্যাত জো জ্যাকসন মাইকেল জ্যাকসনসহ মোট চার ছেলে-মেয়ে স্টেজে গান গাইতেন। 

 

‘জ্যাকসন-ফাইভ’ নামে সেই দল ছিল বিশ্ববিখ্যাত। ১৯৬৯ সালে বিশ্বের সবচেয়ে চাহিদাসম্পন্ন ব্যান্ড ‘জ্যাকসন-ফাইভ’ যার পরবর্তী নাম হয় জ্যাকসনস। জ্যাকসনসের সবচেয়ে ভালো পারফর্মার ছিলেন মাইকেল জ্যাকসন। আর তাই তাকে প্রচারের শীর্ষে আনতে কোনো বাধা মানেননি জো জ্যাকসন। তবে, বাবা জো জ্যাকসন কঠোর শাসনে রাখতেন মাইকেল জ্যাকসনকে। জীবদ্দশায় নিজের সাফল্যের পেছনে বাবার বিরাট ভূমিকার কথা স্বীকার করে গিয়েছিলেন মাইকেল। 

আসছে ‘থ্রি ইডিয়টস’ এর সিকুয়েল

আসছে ‘থ্রি ইডিয়টস’ এর সিকুয়েল

http://images.assettype.com/swarajya/2017-01/eebb9650-d032-4432-80ef-b16f940f9bbe/3-idiots-sequel-1.jpg?w=1280&q=100&fmt=pjpeg&auto=format 

‘থ্রি ইডিয়টস’ এর সিকুয়েল আসছে খুব শিগগিরই। এমনটাই জানিয়েছেন ছবিটির পরিচালক রাজকুমার হিরানী। বর্তমানে তার নতুন ছবি ‘সঞ্জু’ মুক্তির অপেক্ষায় আছে। এর আগে অনেক ছবি তৈরি করলেও রাজকুমার হিরানী আগে কখনো বায়োপিক পরিচালনা করেননি। ‘সঞ্জু’ তার পরিচালিত প্রথম বায়োপিক। এটি অভিনেতা ও তার বন্ধু সঞ্জয় দত্তের জীবন নিয়ে তৈরি। 

 ‘মুন্না ভাই এমবিবিএস’ রাজকুমার হিরানী পরিচালিত প্রথম ছবি। এই ছবিতে ‘মুন্না ভাই’ চরিত্রে হাজির হন সঞ্জয় দত্ত। অনেক বছর পর এই ছবি সঞ্জয়কে দর্শকদের কাছে নতুন করে নিয়ে আসে। এই ছবির সিকুয়েল ‘লাগে রাহো মুন্না ভাই’ও অনেক জনপ্রিয় হয়েছে। দর্শক এই ফ্র্যাঞ্চাইজির আরও সিকুয়েল দেখতে চান। একই পরিচালকের ব্লকবাস্টার ছবি ‘থ্রি ইডিয়টস’ ও ‘পিকে’র সিকুয়েলের জন্যও উন্মুখ হয়ে আছেন দর্শক। 
 
গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল, রাজু এই দুটি ছবির সিকুয়েল তৈরির কথা ভাবছেন। সম্প্রতি এ সম্পর্কে কথা বলেছেন তিনি। এই পরিচালক বলেন, আমার মাথায় কিছু আইডিয়া আছে। কিন্তু সেগুলো খুব  বেশি দূর এগোয়নি। আমি অবশ্যই ‘থ্রি ইডিয়টস’ ছবির সিকুয়েল তৈরি করতে চাই। কারণ, এই ছবি নিয়ে আমার অনেক ভালো অভিজ্ঞতা আছে। আমি আর ছবির সহলেখক অভিজাত যোশী এই সিনেমার সিকুয়েল লিখতে বসেছিলাম একবার। আমরা গল্পের আইডিয়া পেয়েছি। কিন্তু তা নিয়ে আরও অনেক কাজ করা বাকি। আমি হুটহাট কিছু লিখে না ফেলে অনেক সময় ধরে চিত্রনাট্য তৈরি করায় বিশ্বাসী। ছবির গল্পের ব্যাপারে কোনো ছাড় দিতে চাই না। তবে খুব শিগগিরই আসবে ‘থ্রি ইডিয়টস’ এর সিকুয়েল।

ইরানের ফারাবি সিনেমা ফাউন্ডেশনের পরিচালকের সাথে অনন্ত জলিল

সিনেমা অভিনেতা, নির্মাতা এবং প্রযোজক অনন্ত জলিল ইরানের ফারাবি সিনেমা ফাউন্ডেশনের পরিচালক আলিরেজা তাবেশের সঙ্গে সোমবার একটি বৈঠক করেছেন। তার সঙ্গে জলিল ইসলামের শান্তির বিষয়টি নিয়ে একটি চলচ্চিত্র নির্মাণের বিষয়ে কথা বলেছেন। চলচ্চিত্র নির্মাণের ক্ষেত্রে ফারাবি ফাউন্ডেশন এর সহযোগিতা চেয়েছেন জলিল। এক বিবৃতিতে এমনটাই জানিয়েছে ফারাবি ফাউন্ডেশন।

বিবৃতিতে আলিরেজা তাবেশ বলেন, ‘এটা খুবই আনন্দের বিষয় যে আপনি বর্তমান বিশ্বের একটি গুরুত্বপূর্ণ ইস্যু নিয়ে কাজ করতে চান। বিশ্ব চলচ্চিত্র এবং আমাদের আঞ্চলিক চলচ্চিত্র শিল্পেরও উচিত এই বিষয়ে কাজ করা।’

‘আমরাও বাংলাদেশের সঙ্গে যৌথ সিনেমা প্রকল্পে কাজ করতে আগ্রহী। তবে প্রথমেই এমন একটি চিত্রনাট্য লিখতে হবে যেটা দুপক্ষকেই সন্তুষ্ট করবে।’

তাবেশ আরো বলেন, দুটো দেশেই চলচ্চিত্রের ভক্ত আছে প্রচুর। আর দুটি দেশের চলচ্চিত্রই বিশ্ব বাজার ও আঞ্চলিক বাজারের চাহিদা পূরণ করতে সক্ষম।

অনন্ত জলিল বলেন, তিনি বিশ্বের কাছে ইসলামের সত্যিকার চিত্র এবং শান্তির ইসলামের চেহারাটি তুলে ধরতেই একটি চলচ্চিত্র নির্মাণ করতে চান।

‘আমি আমার ধারণা এবং চিন্তাগুলো ইরানের কাছে নিয়ে এসেছি, সেগুলোকে একটি চলচ্চিত্রে রুপদানের জন্য। ইয়েমেন ও সিরিয়ায় অসংখ্য মুসলিম যন্ত্রণায় ভুগছে। অথচ ইসলাম হলো একটি শান্তি ও বন্ধুত্বের ধর্ম।’

জলিল আরো বলেন, ‘পুরো চলচ্চিত্রটি তিনি ইরানেই নির্মাণ করতে চান। এবং ইরানের সৌন্দর্য্য পুরো বিশ্ব এবং নিজ দেশের মানুষের সামনে তুলে ধরতে চান।’

সূত্র: তেহরান টাইমস

চারদিকে সামলানের রেস ৩’ এর জয়জয়কার

চারদিকে সামলানের রেস ৩’ এর জয়জয়কার

http://stz.india.com/sites/default/files/styles/zeebiz_850x478/public/2018/06/15/41994-race-3-poster.jpg?itok=9RunOTJ7&c=2cd821cd84c64bb56243b052cfc91909 

মুক্তি পাওয়ার আগ থেকেই ব্যাপক সমালোচিত হয়ে আসছিল বলিউডের ‘ভাইজান’ সালমান খান অভিনীত অ্যাকশনধর্মী ছবি রেস ৩। তবে বক্স অফিসে সেই সমালোচনার কোনরকম প্রভাব পড়তে দেখা যায়নি। তিন দিনেই ১০০ কোটি রুপির কোঠা পূরণ করেছে ছবিটি। আর পাঁচদিন শেষে মোট আয় দাঁড়িয়েছে ১৩০ কোটির বেশি। খবর ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের।

  খবরে বলা হয়, সালমান খান ও অনিল কাপুর অভিনীত রেস ৩ মঙ্গলবার আয় করেছে ১২.০৫ কোটি রুপি। এ নিয়ে পাঁচদিনে ছবিটি মোট আয় করেছে ১৩২.৭৬ কোটি রুপি।

  রেমো ডি'সুজা পরিচালিত, ববি দেওল, জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ, ডেইজি শাহ, সাকিব সালিম ও ফ্রেডি দারুওয়ালা অভিনীত ছবিটি মুক্তির আগ থেকেই সমালোচিত হয়ে আসছে। কিন্তু ‘রেস’ সিরিজের কোন ছবিই বা সালমান খানের কোন ছবিই কেবল সমালোচনার কারণে বক্স অফিসে ব্যর্থ হয়নি। রেস ৩-এর ক্ষেত্রেও তার ব্যতিক্রম ঘটেনি। 

 

‘রেস’ সিরিজের আগের দু’টি ছবিতে ছিলেন না সালমান, তৃতীয় ছবিতে হঠাৎ করেই প্রবেশ ঘটে তার। ধারাবাহিকতা বজায় রেখে প্রায় প্রতি ঈদেই একটি করে সালমানের ছবি মুক্তি পাচ্ছে সাম্প্রতিক বছরগুলোতে। ছবিগুলোর বেশিরভাগই বক্স অফিসে ব্যাপক সফলতা অর্জন করে থাকে। রেস ৩-ও এখন পর্যন্ত সে পথেই হাঁটছে। ছবিটি ১৫ তারিখ ভারতজুড়ে মুক্তি পেয়েছে।

এবারের ঈদেও থাকছেন মোশাররফ করিম

মুখভর্তি দাড়ি, রোদে পুড়ে যাওয়া কুচকুচে কালো মুখ, ইয়া বড় ভুঁড়ি! এটাই মোশাররফ করিম। যারা গত কয়েক ঈদে মোশাররফ করিম অভিনীত ‘যমজ’ নাটকের সিরিজগুলো দেখে আসছেন তারা মোটেই অবাক হবে না। কারণ মোশাররফকে এমন সব চরিত্রে দেখে অভ্যস্ত তারা।

  এ নাটকে ত্রয়ী চরিত্রে অভিনয় করে আসছেন এ অভিনেতা। যার একটি আলাভোলা, একটি অতি চালাক এবং একটি তাদের বাবার চরিত্র।

  নাটকটি পরিচালনা করছেন আজাদ কালাম। এবারও ঈদুল ফিতরে প্রচারের লক্ষ্যে নির্মাণ করা হল নাটকটির নবম সিক্যুয়েল ‘যমজ-৯’।

  যাতে আগের অনেক শিল্পী পরিবর্তন হলেও ত্রয়ী চরিত্রে থাকছেন মোশাররফ করিম। তার সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন অ্যানি খান ও মনিরা মিঠু। নাটকটি প্রতি ঈদের মতো এবারও আর টিভিতে প্রচার হবে।

ব্রাজিলের গান; পারিশ্রমিক নিলেন না মিশা-জয়-বিপাশা


আর ক'দিন পরেই পর্দা উঠবে রাশিয়া বিশ্বকাপ ফুটবলের। ইতোমধ্যে এ নিয়ে বাংলাদেশের সোশ্যাল মিডিয়াগুলোতে ভক্তদের উত্তেজনা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। এই উত্তেজনায় পারদ চড়াতে আসছে ব্রাজিল ভক্তদের জন্য নির্মিত মিউজিক ভিডিও। পুরো ভিডিওর দৃশ্যধারণ করা হয়েছে এফডিসিতে।
এতে দেখা যাবে খল অভিনেতা অভিনেতা মিশা সওদাগরকে। শাহিন ওয়াহিদের সঙ্গীত পরিচালনায় কণ্ঠ দিয়েছেন ক্লোজআপ তারকা সাজু আহমেদ। আর মিউজিক ভিডিওতে জুটিবদ্ধভাবে উপস্থিত হয়েছেন চিত্রনায়ক জয় চৌধুরী ও চিত্রনায়িকা বিপাশা কবির।



এ প্রসঙ্গে মিশা সওদাগর জানান, এবারের বিশ্বকাপ ফুটবল আর ঈদ একইসঙ্গে। ভক্তদের মধ্যে উত্তেজনা অন্যরকম। একজন খেলায়াড় ছিলাম। অন্যদিকে আমিও ব্রাজিলের অনেক বড় ভক্ত। নিজের ভালোলাগা থেকেই এই কাজটি আমি করেছি। আশাকরি সবার ভালো লাগবে।
জানা গেছে, মিশা জয়, বিপাশা এই মিউজিক ভিডিওতে কাজ করে পারিশ্রমিক নেননি। শুধু তাই নয় বেশ আগ্রহের সাথে নাকি সকলে এতে কাজ করেছেন বলে জানান ভিডিওটির তত্ত্বাবধানে থাকা আকাশ নিবির। তার কথা ও সুরেই গানটি করা হয়েছে। এছাড়াও এতে  মডেল হয়েছেন জারা ও দিয়াসহ একাধিক কুশলী। আগামী বিশ্বকাপ ও ঈদ উপলক্ষে ব্রাজিলের প্রোমোশনাল গানটি লাইভ টেকনোলজির অফিসিয়াল চ্যানেল থেকে মুক্তি পাবে।
আমি  কোনো অপরাধ করিনি:আসিফ

আমি কোনো অপরাধ করিনি:আসিফ

আসিফ মাথানত করবে না: পরিবার 

আইনের মামলায় গ্রেফতার কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবর বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন। খানিকটা অসুস্থও তিনি। তবে একদমই দমে যাননি। তাকে গ্রেপ্তার করার মুহূর্ত থেকে এখন পর্যন্ত তার নিজের কথায় অটল তিনি। তার পরিবারের পক্ষ থেকে এমনটাই দাবি করা হয়েছে বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশ পেয়েছে।

সম্প্রতি এ বিষয়ে মুখ খুললেন চিত্রনায়ক ওমর সানী। নিজের ফেসবুকে ওয়ালে জনপ্রিয় এ অভিনেতা লেখেন, ‘আসিফ, জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত শিল্পী। শফিক তুহিন, জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত শিল্পী। শুধু বলবো- প্লিজ, কেউ একজন এগিয়ে এসে সমাধান করুন। আমরা পরিবারের সবাই খুবই বিব্রত এবং কস্ট পাচ্ছি।’

 

শিল্পী সমাজের বিভিন্নজন যখন একটি সমঝোতার কথা বলছেন সেই সময় তার পরিবার ঠিক এই বিষয়ে কী ভাবছেন তা জানতে চাওয়া হয়েছিল। আসিফের সহধর্মিণী এই মুহূর্তে খুব একটা কারো সাথে কথা বলছেন না।

 

তার পরিবারের একজন জানান, আসিফের সাথে গতকাল শেষবার দেখা হয় তাদের। আপোসের কথা বললে আসিফ বলেন, ‘কোনো ধরনের মাথানত করবেন না তিনি। যার কারণ তিনি কোনো অপরাধ করেননি। এমন কথা আসিফ আদালতে বিচারকের সামনেও বলেছেন।’

উল্লেখ্য,  তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনে গীতিকার, সুরকার ও গায়ক শফিক তুহিনের করা মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছেন সঙ্গীতশিল্পী আসিফ আকবর। মঙ্গলবার রাত দেড়টা নাগাদ পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) একটি দল এফডিসির কাছে তার অফিস থেকে গ্রেপ্তার করে আসিফকে। বুধবার এই শিল্পীর রিমান্ড ও জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত।