"দহন" সিনেমার এর নতুন রেকর্ড

বছর পেরিয়ে গেল। সামনে আসছে নতুন বছর। চলতি বছরে তেমন কোন সিনেমা সাড়া ফেলতে না পারলেও বছরের সেরা আলোচিত সিনেমা হিসেবে বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের ইতিহাসে জায়গা করে নিয়েছে ‘জাজ মাল্টিমিডিয়া’ প্রযোজিত ও রায়হান রাফি পরিচালিত ‘দহন’ সিনেমাটি।

আজ শনিবার (২৯ ডিসেম্বর) অন্যরকম এক বিশ্ব রেকর্ড করতে যাচ্ছে দহন। দেশের ১২টি চ্যানেলে বিভিন্ন সময়ে ‘দহন’ সিনেমাটির ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হতে যাচ্ছে। একই দিনে দেশের ১২টি চ্যানেলে ‘দহন’র ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘জাজ মাল্টিমিডিয়া’র বিরল এক রেকর্ডও।

জাজ’র কর্ণধার আব্দুল আজিজ, ‘দহনের এটি নতুন বিশ্ব রেকর্ড। পৃথিবীতে এর আগে কোন সিনেমা একই দিনে একযোগে ১২টি চানেলে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হয়নি। এই বিশ্ব রেকর্ডের দাবিদার আমাদের সিনেমাপ্রেমী দর্শক। দহনের প্রতি দর্শকের আগ্রহ এবং ভালো লাগার কারণেই এটা সম্ভব হয়েছে। আমার বিশ্বাস আগামী দিনেও আপনারা আমাদের সিনেমার পাশে এমন আগ্রহ নিয়ে থাকবেন পাশে।’

সিয়াম আহমেদ বলেন, ‘বাংলাদেশের সকল দর্শকের কাছে ‘দহন’ পৌঁছে দেবার লক্ষ্যেই এই উদ্যোগ। দহনের প্রতি দর্শকের আগ্রহ আছে বলেই আজ ১২টি চ্যানেলে তা প্রচার হবে। নিজের অভিনীত সিনেমার এমন বিরাট সাফল্যে নিশ্চয়ই আমি আনন্দিত। যারা এখনও দহন দেখেননি আমার বিশ্বাস দহনে আপানারা মুগ্ধ হবেন।’

পূজা চেরী বলেন, ‘বিশ্বাসই হচ্ছে না এমন একটি বিশ্ব রেকর্ড হয়ে যাচ্ছে। তাও সেটা আবার আমারই অভিনীত সিনেমা। অবশ্যই বলব এটা সম্ভব হয়েছে দর্শকের কারণে। কারণ তারা ‘দহন’ দেখতে বারবার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। অবশ্যই ধন্যবাদ দিতে চাই যে সকল টেলিভিশন চ্যানেলে দহন প্রচারে আগ্রহী হয়েছেন। দর্শক যে এখনও আমাদের সিনেমা দেখতে আগ্রহী, দহন’র এই বিশ্ব রেকর্ডই তা নতুন করে প্রমাণ করেছে।’

দহন’র পরিচালক রায়হান রাফি বলেন, ‘নিজের দ্বিতীয় সিনেমার এমন সাফল্যে আমি ভীষণ উচ্ছ্বসিত। দর্শকের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। কৃতজ্ঞ সিনেমার প্রযোজক আব্দুল আজি ভাই, নায়ক সিয়াম ও নায়িকা পূজা’সহ সিনেমায় যারা আন্তরিকতা নিয়ে শ্রম দিয়ে কাজ করেছেন। দহন’র এই বিশ্ব রেকর্ড আমার চলার পথে ভীষণ উৎসাহ, অনুপ্রেরণা হয়ে কাজ করবে।’

দহন আজ সকাল ১০.১০ মিনিটে এসএ টিভিতে, ১০.১৫ মিনিটে গাজী টিভিতে প্রচার হয়েছে। এরপর মাই টিভিতে আজ দুপুর ১.০০টায়, আরটিভি ও এশিয়ান টিভিতে দুপুর ২.১০ মিনিটে, মাছরাঙ্গা টিভিতে দুপুর ২.৩০ মিনিটে, বৈশাখী টিভিতে দুপুর ২.৪৫ মিনিটে চ্যানেল আই ও একুশে টিভিতে বিকেল তিনটায়, দেশ টিভিতে ৩.৩০ মিনিটে এবং আনন্দ টিভি ও মোহনা টিভিতে দুটি ভিন্ন সময়ে প্রচার হবে এই সিনেমাটি।

যতই হামলা আসুক আমি মাঠে আছি, থাকব- হিরো আলম

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বগুড়া ৪ আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে সিংহ প্রতীক নিয়ে লড়ছেন আলোচতি মডেল-অভিনেতা হিরো আলম। নির্বাচনের একদিন আগে গণমাধ্যমকর্মীদের নিকট তার নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর ও তার সমস্ত পোস্টার ছিঁড়ের ফেলা হয়েছে মর্মে অভিযোগ করেছেন।

শনিবার দুপুরে আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম বলেন, নন্দীগ্রামের ৩ নং ভাদুরিয়া ইউনিয়নে আমার নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর করেছেন কে কারা। আমি গতকাল রাতেও ওই অফিসে নির্বাচনী সভা করেছি। এরপরেই আজ সকালে জানতে পারি, আমার অফিস ভাঙচুর করা হয়েছে এবং পোস্টার ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে। এছাড়াও ৫ টি ইউনিয়নের সমস্ত ভোটকেন্দ্রের সামনের পোস্টার ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে।
হিরো আলমের অফিস ভাঙচুর, কর্মীদের হুমকির অভিযোগ
হিরো আলম তার কর্মীদের হুমকি দেওয়া হচ্ছে অভিযোগ করে বলেন, আমার সমস্ত পোলিং এজেন্টদের হুমকি দেওয়া হয়েছে তারা যেন কেন্দ্রে না যায়। আমার কর্মী নজরুল, রাসেল, মোস্তফাসহ আরো অনেককেই ক্রমাগত ফোনে হুমকি দেয়া হচ্ছে। আমাকে নির্বাচন থেকে সরানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। কিন্তু কোনো শক্তি আমাকে নির্বাচন থেকে সরাতে পারবে না। যত আঘাত আসুক আমি মাঠে আছি, থাকব।
হিরো আলম বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম) আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। গত ২ ডিসেম্বর যাচাই-বাছাই করে রিটার্নিং কর্মকর্তা তার মনোনয়নপত্র বাতিল করেছিল। ১০ জনের স্বাক্ষরে গড়মিল থাকায় তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছিল। এরপর মনোনয়ন ফিরে পেতে নির্বাচন কমিশনে (ইসি) আপিল করেন হিরো আলম।
মনোনয়ন পত্র বাতিলাদেশের বিরুদ্ধে ইকোর্টে রিট করেন বগুড়া-৪ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী হিরো আলম। ওই রিটের আদেশে হাইকোর্ট নির্বাচন কমিশনকে হিরো আলমের মনোনয়নপত্র গ্রহণের নির্দেশ দেন।
মোটা নায়িকা চেয়ে বিজ্ঞপ্তি দিলেন জাজের কর্ণধার

মোটা নায়িকা চেয়ে বিজ্ঞপ্তি দিলেন জাজের কর্ণধার

 
হলিউড কিংবা বলিউড সিনেমার নায়িকা মানেই র‌্যাম্প মডেলদের মতো জিরো ফিগারের। দেখতে যেন অনেকটা ছিপছিপে গড়ন আর লিকলিকে চাহনির। আবার তামিলদের ক্ষেত্রে আবেদনময়ী কিন্তু কিছুটা হেলথি হলেও যেন তেমন কিছু যায় আসে না। তবে শারীরিক গড়নের ক্ষেত্রে বাংলাদেশি চলচ্চিত্রের নায়িকাদের প্রভাব রয়েছে দু’দিকেই। যদিও স্লিম ফিগারই মূল অবলম্বন।
তবে সময়ের বিবর্তনে এখন যুগ পাল্টেছে। ধীরে ধীরে বদলে যেতে শুরু করেছে আগের ধ্যান-ধারণা। সত্যি তি তাই? নিশ্চয়ই, তা না হলে কেনইবা মোটা নায়িকার সন্ধান করবেন ছবির প্রযোজক। এরই মধ্যে মোটা নায়িকার সন্ধানে বুধবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে  ‘নায়িকা আবশ্যক’ শিরোনামে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে দেশের প্রথমসারির চলচ্চিত্র প্রযোজনা-পরিবেশনা প্রতিষ্ঠান জাজ মাল্টিমিডিয়া।
প্রতিষ্ঠানটির কর্ণধার আব্দুল আজিজ এ নিয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করছেন। তিনি তার ফেসবুক পেজে লেখেন- 
[নায়িকা আবশ্যক :
একটি নতুন সিনেমার জন্য একজন নতুন নায়িকা আবশ্যক। নিম্ন যোগ্যতা থাকলে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো :
বয়স : ১৬-২১ বৎসর
উচ্চতা : ৫.২”-৫.৪”
শিক্ষা : নুন্যতম এস.এস.সি
ফিগার : অনেক মোটা হইতে হবে।
আমাদের গল্পের নায়িকা অনেক মোটা। 
তাই অনেক মোটা না হলে, যোগাযোগ না করার অনুরোধ রইলো।]
বিজ্ঞপ্তিটি প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গে তাতে অনেকের কমেন্ট দেখা গেছে। কেউ লিখেছেন- ‘ শিক্ষাগত যোগ্যতার ব্যপারেও মোটা হতে হবে। এসএসসি কেন? উচ্চতর ডিগ্রি কেন নয়।’ আবার কেউ লিখেছেন- ‘এখনও দুনিয়ায় মানবতা টিকে আছে, এই পোস্ট দেখার পর মনে হলো। কৃতজ্ঞতা আজিজ ভাই, মোটা মেয়েদের পক্ষ থেকে।’ কেউবা লিখেছেন- ‘ আজিজ ভাই! বাংলা চলচ্চিত্রের হাজারো বছরের `মোটা নায়িকা` ঐতিহ্য ধরে রাখার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। টিকে থাকুক বাংলা চলচ্চিত্র!’
এ প্রসেঙ্গ জাজ মাল্টিমিডিয়ার চেয়ারম্যান আবদুল আজিজ বলেন, ‘ছবির গল্প অনুয়ায়ী অভিনয়শিল্পী বাছাই করি আমরা। আমাদের নতুন ছবির গল্পের চাহিদা একজন মোটা নায়িকা। তাই আমরা সেভাবেই ভেবেছি, সেভাবেই বলেছি।’ ছবিতে স্থূলকায় নায়ক থাকছে? এমন প্রশ্নের জবাবে আজিজ বলেন, ‘নায়ক হবেন একেবারে স্লিম।’

শেষ অংশের শুটিং চলছে নিরব-সোহানার ‘আব্বাস

একেবারে শেষ অংশের শুটিং চলছে নিরব-সোহানা সাবা-সূচনা অভিনীত চলচ্চিত্র ‘আব্বাস’র। ছবিটি নির্মাণ করেছেন তরুণ নির্মাতা ও অভিনেতা সাইফ চন্দন। এছাড়াও বিশেষ একটি চরিত্রে দেখা যাবে নায়লা নাঈমকেও।

গতকাল পুরান ঢাকার শ্যাম বাজারের একটি শুটিং বাড়িতে শুরু হয় ছবির শেষ লটের শুটিং। টানা ৭ দিন চলবে শুটিং এরপর শেষের দিকে গানের দৃশ্যায়নের মধ্য দিয়ে ছবিটির শুটিং শেষ করা হবে বলে জানান নির্মাতা সাইফ চন্দন।

এ প্রসঙ্গে নিরব বলেন, ‘এই ছবির গল্প পুরান ঢাকার আব্বাস নামে এক মাস্তানকে নিয়ে। একটি খুনের অপরাধী হিসেবে চক্রান্তে জড়িয়ে পড়ে সে। এরপর ঘটতে থাকে নানা ঘটনা। থ্রিলার, রোমান্টিক ধাঁচের গল্প নিয়ে নির্মিত হচ্ছে আব্বাস। দর্শক এ ছবিটি পছন্দ করবেন বলেই আমার বিশ্বাস।’

 তিনি আরো বলেন, বর্তমানে ছবির শেষের দিকের কাজ করছি । কিছু সিক্যুয়ান্স আর একটা গানের দৃশ্য শুটিং করা বাকী আছে সাথে একটি গানের দৃশ্যায়নও রয়েছে । গতকাল থেকে শেষ লটের শুটিং করছি। আজ কিছু ফাইটের দৃশ্যায়ন করছি।

ছবির চিত্রনাট্য লিখেছেন মো. জসীম উদ্দিন। এতে আরও অভিনয় করছেন আলেকজান্ডার বৌ, সমাপ্তি মাসুক, ডন, জয়রাজ, তাসনিয়া। আগামী বছর ভালো দিন দেখে ছবিটি মুক্তি দেওয়া হবে বলে জানান নির্মাতা।

আমজাদ হোসেনের সম্মানে তিন দিন শুটিং বন্ধ


কিংবদন্তি চলচ্চিত্র নির্মাতা আমজাদ হোসেন না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছেন শুক্রবার। তাকে হারিয়ে শোকে কাতর বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গন। প্রিয় নির্মাতার মৃত্যুতে তিন দিনের শোক ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি। তিন দিনের জন্য স্থগিত করা হয়েছে সব চলচ্চিত্রের শুটিং।

গতকাল বিএফডিসিতে চলছিল নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামূল পরিচালিত ‘জ্যাম’ ও মোহাম্মদ আসলাম পরিচালিত 'প্রতিশোধের আগুন' ছবি দুটির শুটিং। আমজাদ হোসেনর মৃত্যু সংবাদ জানার পর তারা শুটিং বন্ধ করে দেন। সোমবার পর্যন্ত বন্ধ থাকবে সব চলচ্চিত্রের শুটিং। এদিকে শিল্পী সমিতির কার্যালয়ে উঠানো হয়েছে কালো পতাকা।

 বিষয়টি নিয়ে সমিতির সাধারণ সম্পাদক চিত্রনায়ক জায়েদ খান বলেন, ‘আমজাদ হোসেন আমাদের সমিতির সদস্য নন। কিন্তু তিনি আমাদের পথ প্রদর্শক। তার হাত ধরেই এদেশের অনেক শিল্পী আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তা পেয়েছেন। তাই আমরা তার প্রতি সম্মান জানিয়ে সব কাজ স্থগিত করেছি।’

জায়েদ খান জানালেন, আগামীকাল ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিল শিল্পী সমিতি। সেটিও স্থগিত করা হয়েছে।

চলচ্চিত্রকার আমজাদ হোসেন শুক্রবার (১৪ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টা ৫৭ মিনিটে ব্যাংককের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রখ্যাত এই চলচ্চিত্রকারকে ২৭ নভেম্বর এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে। সেখানেই চিকিৎসারত অবস্থায় মারা যান ৭৬ বছর বয়সী এই চলচ্চিত্র ব্যক্তিত্ব।

আমজাদ হোসেনের শিষ্য নির্মাতা এস এ হক অলিক জানান, আমজাদ হোসেনের মরদেহ ঢাকায় আনার প্রক্রিয়া চলছে। দুই এক দিনের মধ্যে মরদেহ ঢাকায় নিয়ে আসা হবে।

বিয়ে করছেন নায়ক সিয়াম, আজ গায়ে হলুদ

বিয়ে করছেন চিত্রনায়ক সিয়াম আহমেদ। এ কোনো সিনেমা কিংবা নাটকের গল্প নয়। বাস্তবেই দাম্পত্য জীবন শুরু করতে যাচ্ছেন তিনি। পাত্রী আর কেউ নয়, ছয় বছরের প্রেমিকা অবন্তী।সিয়ামের ঘনিষ্ঠ এক সূত্রে জানা গেছে, গতকাল শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর রাতে পারিবারিকভাবেই অবন্তীর রাজারবাগের বাসায় গায়ে হলুদের প্রথম পর্ব সম্পন্ন হয়েছে। আজ শনিবার রাতে সিয়ামের রাজারবাগের বাসায় আরেক দফায় গায়ে হলুদ হবে।রবিবারে হবে আকদ।

তবে আনুষ্ঠানিকভাবে সিয়াম বউ ঘরে তুলবেন আগামী বছর।খানিকটা গোপনে বিয়ের আয়োজন হলেও এরইমধ্যে সেটি ছড়িয়ে গেছে শোবিজে। এক কান দুই কান করে সিয়ামের বিয়ের খবরটি এখন ‘টক অব দ্য টাউন’।‘পোড়ামন ২’ ছবি দিয়ে তার সিনেমায় অভিষেক। সম্প্রতি মুক্তি পাওয়া ‘দহন’ ছবিটি দিয়ে নিজেকে প্রমাণ করেছেন ভার্সেটাইল অভিনেতা হিসেবে। এর আগে থেকেই তিনি মডেল ও ছোটপর্দার অভিনেতা হিসেবে জনপ্রিয়তা পান।

এই অভিনেতা আর সবার থেকে একটু আলাদা। নায়কেরা যেখানে নিজেদের প্রেম-বিয়ে গোপন রাখতেই পছন্দ করেন সেখানে সিয়াম আত্মবিশ্বাসের সাথেই প্রকাশ করেছিলেন নিজের প্রেমিকার নাম।প্রায়ই তিনি ফেসবুকে সেই প্রেমিকার সঙ্গে ছবিও পোস্ট করে থাকেন। 

আর চলতি বছরের ফেব্রুয়ারির দিকে গণমাধ্যমে জানিয়েও ছিলেন তার প্রেম ও প্রেমিকার ব্যাপারে। তিনি বলেছিলেন, তার প্রেমিকার নাম অবন্তী। আট বছর ধরে এই মেয়েকে চেনেন তিনি। আর প্রেম করছেন ছয় বছর ধরে।এক সাক্ষাতকারে জীবনের সবচেয়ে প্রিয় মানুষদের নাম বলতে গিয়েও তিনি জানিয়েছিলেন সে তালিকায় আছেন তার বাবা-মা, নায়ক সালমান শাহ ও তার বান্ধবী অবন্তী।

কলকাতার ‘বোবা রহস্য’ সিনেমায় তিশা

আবারও কলকাতার দর্শকদের জন্য ক্যামেরার সামনে দাঁড়াবেন তিশা। তবে এবার যৌথ প্রযোজনায় নয়, কলকাতার একক প্রযোজনার সিনেমাতেই চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন জনপ্রিয় এই অভিনেত্রী।

ছবির নাম ‘বোবা রহস্য’। এতে আরও অভিনয় করবেন কলকাতার ‘ফেলুদা’খ্যাত অভিনেতা সব্যসাচী চক্রবর্তী। থাকবেন বাংলাদেশের অভিনেতা আমান রেজা, ভারতের খরাজ মুখার্জি, সুদীপ্ত চক্রবর্তী, দর্শনা বণিক, রাহুল ব্যানার্জি, অরিন্দম বাসুসহ অনেকে।

সূত্র জানিয়েছে, রোমান্স ও গোয়েন্দাধর্মী গল্পে নির্মিত হবে ছবিটি। এটি পরিচালনা করবেন অভিষেক বাগচি।

আগামী ১২ জানুয়ারি থেকে শুটিং শুরু হবে ‘বোবা রহস্য’র। শুটিং হবে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ ও ঝাড়খণ্ড মিলিয়ে। সাফটা চুক্তির আওতায় এটি বাংলাদেশে মুক্তি পাবে।

এর আগে তিশা কলকাতায় কাজ করেছেন মুক্তির অপেক্ষায় থাকা ‘হলুদবনি’ ছবিতে। যৌথ প্রযোজনার ওই ছবিতে তিশার বিপরীতে আছেন পরমব্রত। সেখানে আরও অভিনয় করেছেন পাওলি দাম।

সুকান্ত গঙ্গোপাধ্যায়ের ‘হলুদবনি’ উপন্যাস অবলম্বনে তৈরি হচ্ছে ছবিটি। যৌথভাবে পরিচালনা করছেন বাংলাদেশের তাহের শিপন আর ভারতের মুকুল রায় চৌধুরী। ছবির চিত্রনাট্য লিখেছেন পদ্মনাভা দাশগুপ্ত। ‘হলুদবনি’ ছবি প্রযোজনা করছে বাংলাদেশের ইমপ্রেস টেলিফিল্ম লিমিটেড আর ভারতের টেলিসিনে অ্যান্ড এন্টারটেইনমেন্ট প্রাইভেট লিমিটেড।

প্রিয়াঙ্কা-নিকের চুমু ভাইরাল

প্রিয়াঙ্কা-নিকের চুমু ভাইরাল

https://s3-ap-southeast-1.amazonaws.com/images.jagonews24/media/imgAll/2018September/prianka-20181206173344.jpg 

বলিউডে বিয়ের মৌসুম চলছে। একের পর এক তারকাদের বিয়ের ধুম লেগেছে। রণভীর কাপুর ও দীপিকা পাড়ুকোনের বিয়ের রেস কাটতে না কাটতেই এর মধ্যে বিয়ে করেছেন দীপিকা পাড়ুকোন ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। জমকালো আয়োজনে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়েছে তাদের।

বিয়ের কয়েক দিন পার হতে না হতেই সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রকাশ হয়েছে প্রিয়াঙ্কা-নিকের একটি ঘনিষ্ঠ ছবি। এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে সেটা। এই ছবিটিতে নিক ও প্রিয়াঙ্কাকে চুম্বনরত অবস্থায় দেখা যাচ্ছে। যদিও খ্রিষ্টান মতে বিয়েতে একে-অপরকে চুম্বন রীতিতেই পড়ে। তার পরেও এই ছবি যেন আলাদা আবেদন তৈরি করেছেন নেটিজেনদের মধ্যে।

শুধু এই ছবিই নয় বিয়ের অনেক আগে থেকেই একের পর এক ছবিতে সামনে এসেছেন নিক-প্রিয়াঙ্কা। বিয়ের বেশ কিছু ছবিও ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। তবে এই সবকিছুকে ছাপিয়ে গিয়েছে নিক আর প্রিয়াঙ্কার ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের ছবি।বিয়ের ছবিতেও একেক সময় একেক রূপের হাজির হচ্ছেন প্রিয়াঙ্কা। কখনও খ্রিষ্টান বেশে তো কখনও দেশি গার্ল হিসাবে দেখা যাচ্ছে তাকে।

কাঙ্গালিনী সুফিয়ার চিকিৎসায় প্রধানমন্ত্রীর সাহায্য কামনা

কাঙ্গালিনী সুফিয়ার চিকিৎসায় প্রধানমন্ত্রীর সাহায্য কামনা

https://s3-ap-southeast-1.amazonaws.com/images.jagonews24/media/imgAll/2018September/sufia-l-20181206171006.jpg

গুরুতর অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি লোক গানের কিংবদন্তি শিল্পী কাঙ্গালিনী সুফিয়া। সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চলছে তার চিকিৎসা।

কাঙ্গালিনী সুফিয়ার মেয়ে পুষ্প  বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, তার মা গেল মঙ্গলবার স্ট্রোক করেন। তখন তাকে হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।

স্ট্রোকের সমস্যা ছাড়াও কিডনি, হার্টের কঠিন অসুখে ভুগছেন কাঙ্গালিনী সুফিয়া। এমন সব জটিল অসুখ সাড়াতে প্রয়োজন অনেক অর্থের। যা যোগান দিতে পারছে না তার পরিবার। সেজন্য তারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাহায্য কামনা করেছেন।